জাতিসংঘে ফজলে হাসান আবেদ- বিশ্ব নেতৃত্বে তরুণদের সম্পৃক্ততা বাড়াতে হবে

0
25

আধুনিক প্রযুক্তি আর ব্যবসা ও শিক্ষার প্রসারে বাংলাদেশের তরুণ সমাজ অনেক দুর এগিয়েছে। তবে, বিশ্ব নেতৃত্বে তাদের সম্পৃক্ততা বাড়াতে ‘উন্নত প্রশিক্ষণ ও নানা গবেষণামূলক’ বিষয়ে জোর দিতে হবে। এমন মন্তব্য করেছেন ব্র্যাকের প্রতিষ্ঠাতা স্যার ফজলে হাসান আবেদ। জাতিসংঘে অনুষ্ঠিত ‘নেলসন ম্যান্ডেলা পিস সামিট অ্যান্ড ইউএন ইয়ুথ স্ট্রেটেজি’ বিষয়ক সেমিনার অংশ নিয়ে এসব কথা বলেন তিনি। উচ্চপর্যায়ের এ সেমিনারে উদ্বোধনী বক্তব্য রাখেন জাতিসংঘ মহাসচিব। এছাড়া ইউরোপীয় কমিশনের শীর্ষ প্রতিনিধি ছাড়াও এশিয়ান-আফ্রিকান তরুণ উদ্যোক্তাদের অংশগ্রহণ ছিল। জাতিসংঘের সদর দপ্তরে বিভিন্ন অনুষ্ঠানের পাশাপাশি তরুণ সমাজের অগ্রযাত্রায় বিষয়ক উচ্চ পর্যায়ের ওই সেমিনারটি হয়। হাইলেভেল ইভেন্ট অন ইয়ুথ টুয়েন্টি-থার্টি বিষয়ক সেমিনারে উদ্বোধনী বক্তব্য রাখেন জাতিসংঘ মহাসচিব এন্তোনিও গুতেরেস। সেখানে বিভিন্ন দেশের তরুণ উদ্যোক্তারা তাদের মতামত দেন। যার মধ্যে আফ্রিকান-এশিয়ানদের উপস্থিতি ছিল লক্ষ্যণীয়। ‘নেলসন ম্যান্ডেলা পিস সামিট অ্যান্ড ইউএন ইয়ুথ স্ট্রেটেজি’ বিষয়ক সেমিনারের অন্যতম আকর্ষণ ছিলেন, বাংলাদেশের অন্যতম শীর্ষ সংগঠন ও সমাজসেবক স্যার ফজলে হাসান আবেদ। বিশ্বের অন্যতম বৃহত্তম বেসরকারী সংগঠন ‘ব্র্যাকের প্রতিষ্ঠাতা ও চেয়ারম্যান বলেন, বিশ্বায়নের এ অগ্রযাত্রাকে আরো শাণিত করতে হলে; তরুণ সমাজকে এগিয়ে আসতে হবে। তাদের অনুপ্রাণীত করতে জাতিসংঘের নেয়া পদক্ষেপের প্রশংসাও করেন তিনি। এসময়ে বাংলাদেশের তরুণ প্রজন্মের বিষয়েও কথা বলেন স্যার আবেদ। তাগিদ দেন এসব তরুণদের শিক্ষা, প্রশিক্ষণ ও প্রযুক্তিতে আরো বেশী সংশ্লিষ্টতা বাড়ানোর। সেমিনারে বিভিন্ন দেশের গুরুত্বপূর্ণ ব্যাক্তিবর্গের পাশাপাশি ইউরোপী ইউনিয়নের ফরেন অ্যাফেয়ার্স বিভাগের শীর্ষ প্রতিনিধি ফেদেরিকা মগেরিনি বক্তৃতা করেন। ইউরোপের তরুণ প্রজন্মকে উদ্ধুব্ধ করণ প্রক্রিয়া তাদের কমিশনের নানা কর্মকান্ডের কথা তুলে ধরেন তিনি। মানবজমিন